• রোববার, ২২ মে ২০২২, ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯
  • ||

হত্যা মামলার জামিনে এসে বাদীপক্ষের ওপর হামলা

প্রকাশ:  ০৮ জানুয়ারি ২০২২, ১৮:১৪
মোংলা (বাগেরহাট) প্রতিনিধি

বাগেরহাটের রামপালে আওয়ামী লীগ নেতা ফিরোজ শেখ হত্যা মামলার আসামি বেল্লাল ব্যাপারীসহ ৯ জন উচ্চ আদালত থেকে জামিন নিয়ে এসে আবারো বাদীপক্ষের লোকজনের উপর হামলা চালিয়েছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

শুক্রবার (৭ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় উপজেলার ভাগা বাজার এলাকায় আসামিদের হামলা ও মারপিটে বাদীপক্ষের এক নারীসহ দুইজন গুরুতর আহত হয়েছেন।

আহতদেরকে সেখান থেকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় পুলিশ তাৎক্ষণিকভাবে ঘটনাস্থল থেকে ১০ জনকে আটক করেছে পুলিশ।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, গত ১৭ ডিসেম্বর প্রকাশ্যে দিবালোকে উপজেলার কাষ্টবাড়ীয়া এলাকার বাসিন্দা ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ নেতা ফিরোজ শেখকে ধারালো অস্ত্র, রড ও লাঠি-সোঠা দিয়ে পিটিয়ে এবং কুপিয়ে হত্যা করে বেল্লাল ব্যাপারী গং। এ ঘটনায় নিহত ফিরোজের স্ত্রী নাজমা বেগম বাদী হয়ে বেল্লাল ব্যাপারীসহ ৬০ জন ও অজ্ঞাতনামা আরো ২০ জনকে আসামি করে থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। ওই মামলায় পুলিশ ও র‌্যাব এ পর্যন্ত ১০ জনকে আটক করে। এদিকে গত বুধবার উচ্চ আদালত থেকে জামিন নিয়ে মামলার আসামি বেল্লাল ব্যাপারীসহ ৯ জন বৃহস্পতিবার এলাকায় আসেন। তারা এলাকায় আসার পর সংঘবদ্ধ মহড়া দিয়ে পরিস্থিতি উত্তপ্ত ও আতংকের সৃষ্টি করেন। তারই ধারাবাহিকতায় শুক্রবার সন্ধ্যায়/মাগরিবের পর বেল্লাল ব্যাপারী ও তার সহযোগীরা ভাগা বাজার এলাকায় এসে হত্যা মামলার বাদীপক্ষের লোকজনের ওপর আবারো হামলা চালান।

এ সময় বেল্লালের নেতৃত্বে এ হামলা ও মারপিটে মাথা ফেটে মতিয়ার রহমান গুরুতর আহত হন। এ সময় আহত হন হাসিনা বেগমও। আহত মতিয়ারকে তাৎক্ষনিকভাবে রামপাল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। এ খবর পেয়ে রামপাল থানা পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে বেল্লাল ব্যাপারী, ফারুক ব্যাপারী, জাহজাহান ব্যাপারী, রুহল আমিন ব্যাপারী, আব্দুল ওয়াদুদ, হোসেন আলী সরদার, মোঃ হোসেন আলী, বাচ্চু সরদারসহ ১০ জনকে আটক করে।

এদিকে শুক্রবার ভাগা বাজারের সাপ্তাহিক হাটের দিন হওয়ায় লোকজন দিক-বিদিক ছুটাছুটি করে পথচারীরাও আহত হন। এ সময় বাজারের বেশির ভাগ দোকান পাট বন্ধ হয়ে যায়। পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনলেও এখন ওই এলাকায় থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে।

রামপাল থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোহাম্মদ সামসুউদ্দীন বলেন, ফিরোজ শেখ হত্যা মামলায় বেল্লালসহ কয়েকজন জামিন নিয়ে আসার পর শুক্রবার সন্ধ্যায় ভাগা বাজারে প্রতিপক্ষের লোকজনের উপর আবারো হামলা চালায়। এতে মতিয়ার নামের একজন গুরুতর আহত হয়। তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ঘটনার খবর পাওয়ার পর আমিসহ অন্যান্য পুলিশ সদস্যরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন ও ওই এলাকা থেকে বেল্লালসহ ১০ জনকে আটক করে থানায় নিয়ে আসি। এ ঘটনায় আটককৃতদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের প্রক্রিয়া চলছে।


পূর্বপশ্চিমবিডি/জিএস

হত্যা মামলা,হামলা,মোংলা
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

সারাদেশ

অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close