• মঙ্গলবার, ০২ জুন ২০২০, ১৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭
  • ||

গার্মেন্ট শ্রমিক ছাঁটাই

প্রকাশ:  ১০ এপ্রিল ২০২০, ১৪:১৮ | আপডেট : ১০ এপ্রিল ২০২০, ১৫:৪২
সাভার প্রতিনিধি

সাভারে একটি তৈরি পোশাক কারখানায় ১৫০ জন শ্রমিকের আইডিকার্ড জব্দ করে জোরপূর্বক অব্যাহতিপত্রে সাক্ষর নেয়ার অভিযোগ উঠেছে। বৃহস্পতিবার (৯ এপ্রিল) উপজেলার আউকপাড়া এলাকায় রাইজিং টেক্স ফ্যাশন লিমিটেড কারখানায় এ ঘটনা ঘটে।

শ্রমিকরা জানান, তাদের কারখানায় প্রায় ১৫০০ শ্রমিক রয়েছে। কারখানাটিতে সন্ধায় বেতন দেয়ার সময় শ্রমিকদের মধ্যে যাদের চাকরির বয়সসীমা ১বছর পূর্ণ হয়নি এমন প্রায় ১৫০ শ্রমিকের মার্চ মাসের বেতন দিয়ে জোড়পূর্বক আইডিকার্ড ও অব্যাহতি পত্রে সাক্ষর রাখা হয়েছে।

শ্রমিকরা অভিযোগ করে বলেন, আমরা নিয়ম অনুযায়ী মার্চ মাসের যে বেতন পাওয়ার কথা তার থেকে ৩/৪ হাজার টাকাও কম দেয়া হয়েছে।

মমিনুল নামে কারখানার এক শ্রমিক বলেন, আমরা যারা আইডিকার্ড ও অব্যাহতিপত্রে স্বাক্ষর করতে চাইনি কারখানা কর্তৃপক্ষ তাদের মারধর করেছে।

তিনি বলেন, এই সংকটময় সময়ে মালিক আমাদের পাশে না দাড়িয়ে উল্টো আমাদের ছাঁটাই করছে আমাদের সাথে অন্যায় করা হচ্ছে।

এ ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়ে গার্মেন্টস শ্রমিক ট্রেড ইউনিয়ন কেন্দ্রের সাংগঠনিক সম্পাদক খাইরুল মামুন মিন্টু বলেন, যে কোন সংকটময় সময়ে মালিকদের শ্রমিকদের পাশে দাড়ানো উচিত। কিন্তু কিছু কিছু মালিক, শ্রমিকদের পাশে না দাড়িয়ে উল্টো শ্রমিক ছাঁটাই উৎসবে মেতে উঠেছে।

গার্মেন্টস শ্রমিক ট্রেড ইউনিয়ন কেন্দ্র এঘটনার তীব্র প্রতিবাদ জানায় বলেও মন্তব্য করেন খাইরুল মামুন মিন্টু।

তবে শ্রমিকদের অভিযোগ ভিত্তিহীন দাবি করেছেন কারখানাটির ম্যানেজার (এ্যাডমিন) হাসানুজ্জামান। তিনি বলেন, আমাদের কারখানায় এ ধরনের কোন ঘটনা ঘটেনি। কারখানাটিতে ৪০০ শ্রমিক রয়েছে বলেও দাবি করেন তিনি।

ঢাকা শিল্প পুলিশ ১ এর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাহমুদ নাসের জনি বলেন, রাইজিং টেক্স ফ্যাশন লিমিটেড কারখানায় আমাদের একটি টিম অবস্থান করতেছে। আমরা কারখানা কর্তৃপক্ষকে এই মুহুর্তে শ্রমিক ছাঁটাই করতে নিষেধ করছি।

এদিকে সাভার ও আশুলিয়া এলাকায় মোট ১৩২টি পোশাক কারখানায় আজ শ্রমিকদের বেতন দেয়া হয়েছে বলেও জানান পুলিশের এই কর্মকর্তা।

পূর্বপশ্চিমবিডি/আরএইচ

সাভার,পোশাক শ্রমিক
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

সারাদেশ

অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close