• মঙ্গলবার, ৩১ মার্চ ২০২০, ১৭ চৈত্র ১৪২৬
  • ||

ক্লাস চলাকালে ছাত্রকে সিগারেট আনতে পাঠালেন শিক্ষক!

প্রকাশ:  ০৩ নভেম্বর ২০১৯, ১৬:০৭ | আপডেট : ০৩ নভেম্বর ২০১৯, ১৬:৩৭
নওগাঁ প্রতিনিধি

নওগাঁর মহাদেবপুর উপজেলার শালগ্রাম সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক আসাদ (টুটুল) ক্লাস চলাকালে এক ছাত্রকে দিয়ে ৫০০ মিটার দূরের বাজার থেকে সিগারেট আনিয়েছেন। এ ঘটনাটি জানাজানি হলে অভিভাবকদের মাঝে চরম ক্ষোভের সৃষ্টি হয়। তারা এ নিয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবর লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে এক অভিভাবক জানান, প্রধান শিক্ষক মো. এনামুল ও সহকারি শিক্ষক আসাদ ওরফে টুটুল নিয়মিত ধুমপান করেন। তারা দুজনই বিদ্যালয়ের কোমলমতি শিক্ষার্থীদের সামনেই নিয়মিত ধুমপান করেন। সম্প্রতি ক্লাস চলাকালীন সময়ে সকাল সাড়ে ১০টার দিকে ওই বিল্যালয়ের ৫ম শ্রেণির এক ছাত্রকে দিয়ে বাইসাইকেল যোগে প্রায় ৫০০ মিটার দূরে চান্দা বাজারে সিগারেট আনতে পাঠান শিক্ষক টুটুল।

এক শিক্ষার্থী জানান, আমাকে দিয়ে শিক্ষক টুটুল মাঝে মধ্যেই সিগারেটসহ অন্যান্য দ্রব্য বাজার থেকে আনিয়ে নেন।

অন্য এক শিক্ষার্থী জানান, উক্ত শিক্ষক তাকে দিয়েও নিয়মিত সিগারেট আনিয়ে নিতেন।

এছাড়াও সহকারি শিক্ষক টুটুলের বিরুদ্ধে অন্যান্য মাদকদ্রব্য সেবন ও স্থানীয়ভাবে জুয়ার বোর্ড চালানোসহ ছাত্র-ছাত্রীদের সাথে খারাপ আচরণের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

শালগ্রাম সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক আসাদ ওরফে টুটুলের কাছে জানতে চাইলে মাদকদ্রব্য সেবন ও জুয়ার বোর্ড চালানোর অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, স্কুলের আশেপাশে দোকান না থাকায় মাঝে মাঝে ছাত্রদের হাতে সিগারেট আনিয়ে নেন।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে প্রধান শিক্ষক এনামুল হক মোবাইল ফোনে জানান, বিদ্যালয় চলাকালে শিক্ষার্থীদের বাজারে পাঠিয়ে সিগারেট আনার বিষয়টি তিনি জানেন না, তবে ওই শিক্ষার্থীকে সিগারেট নয় সম্ভবত মোবাইলের কার্ড আনতে পাঠানো হয়েছিল।

মহাদেবপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. মিজানুর রহমান মিলন বলেন, অভিযোগ পেয়েছি তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।


পূর্বপশ্চিমবিডি/ইমি

নওগাঁ,শিশু শিক্ষার্থী
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

সারাদেশ

অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close