Most important heading here

Less important heading here

Some additional information here

Emphasized text
  • শনিবার, ১৯ অক্টোবর ২০১৯, ৩ কার্তিক ১৪২৬
  • ||

ওয়ার্ডবয় যখন চিকিৎসক!

ভাঙা পা রেখে শিশুর ভালো পায়ে প্লাস্টার

প্রকাশ:  ১০ অক্টোবর ২০১৯, ২৩:৩৩
নেত্রকোনা প্রতিনিধি
প্রিন্ট icon

ডিউটিরত ডাক্তার জরুরি বিভাগে উপস্থিত না থাকায় ওয়ার্ডবয়ের ভুল চিকিৎসার শিকার হয়েছে প্রীতম নামে চার বছরের এক শিশু। তার ভাঙা পা রেখে ভালো পায়ে প্লাস্টার করা হয়েছে।ঘটনাটি ঘটেছে নেত্রকোনার মোহনগঞ্জ হাসপাতালে।

জানা গেছে, বুধবার (৯ অক্টোবর) বিকালে খালিয়াজুরী উপজেলার চাকুয়া ইউনিয়নের পাথরা গ্রামে পরিতোষ সরকার তার চার বছরের শিশুসন্তান প্রীতমের ডান পা ভাঙ্গা অবস্থায় মোহনগঞ্জ হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নিয়ে আসেন।

প্রীতমের ডান পা ভাঙ্গা চিকিৎসায় প্লাস্টারের জন্য জরুরি বিভাগে পাঠান ডা. সুবির সরকার। সেখানে ডিউটিরত ডা. তানবীর হাসান জরুরি বিভাগে উপস্থিত না থাকায় ওয়ার্ডবয় জামাল মিয়া বিষয়টি লক্ষ্য না করেই রোগীর ভাঙ্গা পা রেখে ভালো পা প্লাস্টার করে দেয়। রাতে শিশুটির অবস্থার অবনতি হলে বৃহস্পতিবার সকালে তাকে নিয়ে তার বাবা মোহনগঞ্জ হাসপাতালে পুনরায় আসেন। জরুরি বিভাগের ময়না নামে চতুর্থ শ্রেণির এক কর্মচারী প্রীতমের ভালো পায়ের প্লাস্টার খুলে ভাঙ্গা পা প্লাস্টার করে দেয়।

ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা নুর মোহাম্মদ শামছুর আলম বলেন, শিশুটিকে ভুল চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।

এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও জানান তিনি।

পূর্বপশ্চিমবিডি/জিএম

ওয়ার্ডবয়,ভুল চিকিৎসা,নেত্রকোনা,মোহনগঞ্জ হাসপাতাল
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

সারাদেশ

অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত