• বৃহস্পতিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ১২ ফাল্গুন ১৪২৭
  • ||

রাজস্থানে ফিরতে পেরে খুশি মরিস

প্রকাশ:  ২১ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ২০:১৪
স্পোর্টস ডেস্ক

ভারতের চেন্নাইয়ে বৃহস্পতিবার (১৮ ফেব্রুয়ারি) অনুষ্ঠিত হয় ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) ১৪তম আসরের নিলাম। নিলামে দক্ষিণ আফ্রিকার বোলিং অলরাউন্ডার ক্রিস মরিসকে নিয়ে রীতিমত কাড়াকাড়ি পড়ে গিয়েছিলো। অবশেষে তাকে কিনতে রেকর্ড ভাঙতে হয়েছে রাজস্থান রয়্যালসকে।

মরিসের ভিত্তিমূল্য ছিলো ৭৫ লাখ রুপি। সেখান থেকে কয়েক দলের টানাটানিতে শেষ পর্যন্ত দাম গিয়ে ঠেকেছে সোয়া ১৬ কোটি রুপিতে। মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স প্রথমে বিড করেছিলো এই অলরাউন্ডারকে। তারপর একে একে যোগ দেয় রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালুরু, রাজস্থান রয়্যালস।

এর আগে আইপিএলের ইতিহাসে সর্বোচ্চ দামে বিক্রি হওয়ার রেকর্ডটি ছিলো যুবরাজ সিংয়ের। ২০১৫ সালে ভারতীয় এই অলরাউন্ডারকে ১৬ কোটি রুপিতে কিনে নিয়েছিলো দিল্লি ডেয়ারডেভিলস।

এতো দাম দিয়ে যাকে কেনা হলো তার প্রতিক্রিয়া কেমন? অর্থ প্রসঙ্গে মরিস কিছুই বলেননি। রাজস্থানে ফিরে তিনি খুশি।

মরিস বলেন, আমি খুবই ভাগ্যবান রাজস্থানে পুনরায় যুক্ত হতে পেরে। আমি ক্যারিয়ারের সেরা সময় সেখানে কাটিয়েছি এখানে। অবিশ্বাস্য খুশি এ কারণে যে, আমরা দারুণ একটি স্কোয়াড পেয়েছি। পুরোনো কিছু বন্ধু পেয়েছি যাদের সঙ্গে একই জার্সিতে মাঠে নামতে মুখিয়ে থাকবো।

৩৩ বছর বয়সী মরিস আগেও খেলেছেন রাজস্থানে। ২০১৫ সালে ১১ ম্যাচ খেলে ১৩ উইকেট শিকারের পাশাপাশি করেন ৩১১ রান। তবে সবচেয়ে বেশি সময় থেকেছেন দিল্লি ক্যাপিটালসে। ২০১৬ থেকে ২০১৯ সাল পর্যন্ত ছিলেন গতবারের রানার্স আপ দলটির সঙ্গে।

সব মিলিয়ে আইপিএলে ৭০ ম্যাচে ১৫৭.৮৮ স্ট্রাইক রেটে ৫৫১ রান ও ৭.৮১ ইকোনমি রেটে ৮০ উইকেট নিয়েছেন দক্ষিণ আফ্রিকান অলরাউন্ডার। গত আসরে ৬.৬৩ ইকোনমি রেটে ১১ উইকেট নেন, এরপর আর কোনো প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ ক্রিকেট খেলেননি।

রাজস্থান ২০০৮ সালে প্রথম আইপিএলের শিরোপা জিতেছিলো। এরপর কোনো ফাইনাল খেলতে পারেনি। মরিসসহ এবার তারা বাংলাদেশের মোস্তাফিজুর রহমানকেও নিয়েছে। দেখার বিষয়, ফাইনালের ভাগ্য খুলে নাকি তাদের।

পূর্বপশ্চিমবিডি/অ-ভি

আইপিএল,নিলাম,ক্রিস মরিস,রাজস্থান রয়্যালস,খুশি
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
cdbl
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close