• রোববার, ০৫ এপ্রিল ২০২০, ২২ চৈত্র ১৪২৬
  • ||

বেতনের ২০ শতাংশ কর্মচারীদের দেবেন বায়ার্ন খেলোয়াড়রা

প্রকাশ:  ২৪ মার্চ ২০২০, ২৩:০৯
স্পোর্টস ডেস্ক

করোনার প্রভাবে বিশ্বের নামি দামি ক্লাবগুলো আর্থিক ক্ষতির মুখে পড়ল। যে তালিকায় আছে বরুশিয়া ডর্টমুন্ড এবং বায়ার্ন মিউনিখ। আর ক্ষতির কবলে পড়ে যাতে কোনো কর্মচারীর চাকুরী না যায়। সেজন্য নিজেদের বেতনের ২০ শতাংশ কম নেবেন দুই ক্লাবের ফুটবলাররা।

করোনাভাইরাসের কারণে গেল ৮ মার্চ থেকে বুন্দেসলিগার খেলা স্থগিত হয়ে আছে। এতে তৈরি হওয়া আর্থিক ঘাটতি নিয়ে সোমবার দুই জার্মান ক্লাব বায়ার্ন ও ডর্টমুন্ডের কর্মকর্তারা খেলোয়াড়দের সঙ্গে আলোচনা করেন। আর ফুটবলারদের ইতিবাচক মনোভাবের কারণে আলোচনা ফলপ্রসূ হয়েছে বলে জানিয়েছে জার্মানির অন্যতম শীর্ষ গণমাধ্যম বিল্ড। তবে আগামীতে যদি দর্শকশূন্য স্টেডিয়ামে খেলা হয়, তবে নির্ধারিত বেতনের ১০ শতাংশ কম নিতে পারেন খেলোয়াড়রা।

বায়ার্ন দলনেতা ম্যানুয়েল নয়্যার, থমাস মুলার, রবার্ট লেওয়ানডস্কি, ডেভিড আলাবা, জশুয়া কিমিচ ও থিয়াগোর সঙ্গে বায়ার্ন প্রধান কার্ল-হেইঞ্জ রুমানিগে, অলিভার কান এবং হাসান সালিহামিদজিকে আলোচনায় বসে এমন মহতী সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

পৃথিবীর অন্যতম বৃহৎ ক্লাব বায়ার্ন খেলোয়াড়দের বেতন বাবদ বিশাল অঙ্কের অর্থ খরচ করে থাকে। এ ছাড়া ক্লাবের সঙ্গে যুক্ত আছেন প্রায় হাজারো কর্মচারী। বায়ার্নের ম্যানেজার লুসিয়ান ফেভ্রে, যিনি বছরে সাড়ে ৪ মিলিয়ন ইউরো ক্লাব থেকে বেতন হিসেবে নিয়ে থাকেন, তিনি জানিয়েছেন, ২০ শতাংশ কম বেতন নিতে সানন্দে রাজি আছেন।

অন্যদিকে, বায়ার্নের মতো জায়ান্ট ক্লাব না হলেও ডর্টমুন্ডের বার্ষিক খরচও কম না। খেলোয়াড়দের বেতন বাবদ বছরে প্রায় ১৪০ মিলিয়ন ইউরো খরচ করে ক্লাবটি। তাই খেলোয়াড়রা চলতি মাসে ২০ শতাংশ বেতন কম নিলে প্রায় ২.৩ মিলিয়ন ইউরো বেঁচে যাবে তাদের। আর তা দিয়ে ক্লাবের প্রায় ৮৫০ কর্মচারীকে বেতন দেওয়া সম্ভব হবে। বিল্ডের সংবাদ অনুযায়ী, খুব শিগগিরই জার্মানির আরেক শীর্ষ ক্লাব শালকে জিরো ফোরও এমন সিদ্ধান্ত নিতে পারে।

পূর্বপশ্চিমবিডি/জেআর

করোনা
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close