• বৃহস্পতিবার, ২৮ মে ২০২০, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭
  • ||

নির্ঘুম রাত কাটিয়েছিলেন টেইলর

প্রকাশ:  ১২ জুলাই ২০১৯, ১৭:২০
স্পোর্টস ডেস্ক

বিশ্বকাপ ক্রিকেট প্রায় শেষ। আর একটি ম্যাচের অপেক্ষা তারপর ঘোষণা হবে নতুন বিশ্বচ্যাম্পিয়নের নাম। কে হবে চ্যাম্পিয়ন, ইংল্যান্ড নাকি নিউজিল্যান্ড? পাশাপাশি এসব প্রশ্ন চললেও সমানতালে চলছে ভারত ও নিউজিল্যান্ড ম্যাচের বিশ্লেষণ। সেমিফাইনাল শেষ হলেও থেমে নেই সেই ম্যাচের আলোচনা।

বৃষ্টির কারণে ভারত-নিউজিল্যান্ডের সেমিফাইনাল গড়ায় রিজার্ভ ডেতে। নতুন দিন শুরু করেন অভিজ্ঞ কিউই ব্যাটসম্যান রস টেলর। ম্যাচ পরের দিনে গড়ানোর কারণে আগের রাতে ঘুমাতে পারেননি তিনি। বৃহস্পতিবার গণমাধ্যমকে এ কথা জানিয়েছেন টেলর নিজেই। ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে মঙ্গলবার ভারতের বিপক্ষে আগে ব্যাট করতে নেমে ৪৬.১ ওভারে ২১১/৫ রান তোলে নিউজিল্যান্ড। এর পর বৃষ্টিবাধায় আর একটি বলও মাঠে গড়ায়নি।

৬৭ রানে অপরাজিত ছিলেন টেলর। বাকি ২৩ বলে বৃষ্টিবিঘ্নিত ম্যাচে দলকে লড়াকু সংগ্রহ এনে দিতে চিন্তিত ছিলেন তিনি। ডানহাতি ব্যাটসম্যান বলেন, রিজার্ভ ডেতে মাঠে নামার আগে রাত ৩টায় উঠে গিয়েছিলাম আমি। আমার চিন্তা হচ্ছিল, শেষ ২৩ বল কীভাবে খেলব। ৫টায় বউকে বার্তা পাঠাই- ঘুম আসছে না। আমার বউ অবাক হয়!

টেলর যোগ করেন, পরে বাসা থেকে একের পর এক ফোন আসে আমার কাছে। বিরক্ত হয়ে ফোনও বন্ধ করে দিই। যদি প্রশ্ন করেন, ঘুম কেমন হয়েছে? আমি বলব- ঘুমাতেই পারিনি। বুধবার ব্যাট করতে নেমে শেষ পর্যন্ত নির্ধারিত ৫০ ওভারে লড়াকু ২৩৯/৮ রান তুলতে সামর্থ্য হয় নিউজিল্যান্ড। ব্যক্তিগত ঝুলিতে আরও ৭ রান যোগ করেন টেলর। দলের সবাই ২৫০ রান আশা করলেও তার লক্ষ্য ছিল অন্তত ২৪০ এনে দেয়া।

পরে এই রান পুঁজি করেই শক্তিশালী ভারতকে ১৮ রানে হারিয়ে টানা দ্বিতীয়বারের মতো বিশ্বকাপের ফাইনালে উঠেন ব্ল্যাক ক্যাপসরা। জয়ের নেপথ্য নায়ক টেলর বলেন, সবাই ২৫০ রান করতে বলেছিল। কিন্তু আমি ভেবেছিলাম, ২৪০ রানের কথা। উইলিয়ামসন ও আমি আগের রাতে এটা নিয়ে আলোচনা করেছিলাম। এখন আমি ঘুমাতে যেতে পারি।

পূর্বপশ্চিমবিডি/ এসএ

বিশ্বকাপ,নিউজিল্যান্ড,টেইলর
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close