• শুক্রবার, ২২ নভেম্বর ২০১৯, ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৬
  • ||

ভারতের সংবাদ সম্মেলন বর্জন সাংবাদিকদের

প্রকাশ:  ০৪ জুন ২০১৯, ১৭:০৫
স্পোর্টস ডেস্ক

দ্বাদশ বিশ্বকাপ শুরুর ৬ দিন পর প্রথম ম্যাচ খেলতে মাঠে নামবে ভারত। বুধবার (০৫ জুন) দক্ষিণ আফ্রিকার মুখোমুখি হবে কোহলিরা। এর আগে সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে সংঘাত বেঁধে গেল ভারত দলের। নিতান্ত তিক্ততার পর্যায়ে না পৌঁছালেও দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে কোহলিদের মাঠে নামার আগে ভারতীয় ক্রিকেট দলের সাংবাদ সম্মেলন বয়কট করার ঘোষণা দিয়েছে সাংবাদিকরা।

অনুশীলনের দিনে কাউকে না কাউকে সংবাদমাধ্যমের সামনে আসতে হয়। যদিও এই নিয়মের তোয়াক্কা করে না টিম ইন্ডিয়া। মাঝে মাঝেই ভারতীয় দল প্রেস কনফারেন্স বয়কট করে। কিন্তু, এবার ভারতীয় দলকেই বয়কট করল সংবাদকর্মীরা। বিশ্বকাপের ম্যাচের পরও ভারতীয় দলকে বয়কট করার হুমকি দিয়ে রাখল তারা।

অনুশীলনের পর প্রেস কনফারেন্সে সাংবাদিকরা বসে থাকলেও ভারতীয় কোনো ক্রিকেটার সেখানে যাননি। এমনকি কোচিং স্টাফদেরও কেউ কথা বলার জন্য, সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তর দেওয়ার জন্য আসেননি। সাউদাম্পটনের কনফারেন্স রুমে উপস্থিত সংবাদমাধ্যমের প্রতিনিধিরা পরে ভারতীয় মিডিয়া ম্যানেজারের শরণাপন্ন হন। ভারতীয় দলের মিডিয়া ম্যানেজার অপেক্ষামান সাংবাদিকদের জানিয়ে দেন যে, দলের কেউ নন, সংবাদ সম্মেলনে আসবেন তিন নেট বোলার দীপক চাহার, আবেশ খান ও খলিল আহমেদ।

ভারতীয় মিডিয়া ম্যানেজারের এই কথায় ক্ষোভ দেখান সাংবাদিকরা। সংবাদকর্মীদের যুক্তি ছিল, দল নিয়ে কোনো প্রশ্নের উত্তর জানাতে পারবেন না এই নেট বোলাররা। এমন কী তারা দলের সাধারণ তথ্যও দিতে পারবেন না। অনেক অনুরোধের পরও বিশ্বকাপের স্কোয়াডে থাকা ভারতের কোনও ক্রিকেটার কিংবা কোচিং স্টাফদের সঙ্গে কথা বলতে পারেননি সাংবাদিকরা। ফলে, সংবাদ সম্মেলন বয়কট করেন তারা। যাওয়ার আগে হুমকি দিয়েছেন সংবাদকর্মীরা। জানিয়েছেন বিশ্বকাপের মতো আসরে ভারত এমন নিন্দিত কাজ করলে দলটির সংবাদ সম্মেলন বয়কট করবেন তারা।

এদিকে, ভারতীয় দলের পক্ষ থেকে যুক্তি দেখানো হয় যে, যেহেতু চাহার ও আবেশ দেশে ফিরবেন (খলিল থাকছেন দলের সঙ্গে), তাই তাদের সংবাদ সম্মেলনে আসার সুযোগ দেওয়া হয়েছিল। যদিও এই যুক্তি হাস্যকর মনে হয়েছে সাংবাদিকদের।

পিপিবিডি/অ-ভি

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত