Most important heading here

Less important heading here

Some additional information here

Emphasized text
  • শনিবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৬ আশ্বিন ১৪২৬
  • ||

বিশ্বকাপে মাইক্রোফোন হাতে শচিনের অভিষেক

প্রকাশ:  ৩১ মে ২০১৯, ১৫:৩৭
স্পোর্টস ডেস্ক
প্রিন্ট icon

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে গুডবাই জানানোর ছ’ বছর পরে ধারাভাষ্য হিসেবে অভিষেক হল শচিন রমেশ তে টেন্ডুলকারের৷ বৃহস্পতিবার(৩০ মে) কেনিংটন ওভালে বিশ্বকাপের উদ্বোধনী ম্যাচে মাইক্রোফোন হাতে ধারাভাষ্য হিসেবে ক্রিকেটবিশ্ব দেখল লিটল মাস্টারকে৷

ইংল্যান্ড ও দক্ষিণ আফ্রিকার মধ্যে উদ্বোধনী ম্যাচে কমেন্ট্রি বক্সে দেখা গেল ভারতীয় ক্রিকেটে প্রাক্তন থ্রি-মাস্কেটিয়ার্সকে৷ কমেন্ট্রি বক্সে শচিনের পাশে ছিলেন টিম ইন্ডিয়ায় তার দুই প্রাক্তন ওপেনিং পার্টনার সৌরভ এবং বীরেন্দ্র শেহওয়াগ৷ এর আগে অবশ্য ‘শচিন ওপেনস এগেন’ নামক প্রি ম্যাচ শো অনুষ্ঠানে বিশেষজ্ঞ হিসেবে যোগ দিয়েছিলেন ৪৬ বছরের এই মারাঠি৷

ভারতের একমাত্র ক্রিকেটার হিসেবে ছ’টি বিশ্বকাপের প্রতিনিধিত্ব করেছেন শচিন৷ একটি বিশ্বকাপের সর্বাধিক রান এখনও তার দখলে৷ দক্ষিণ আফ্রিকার মাটিতে ২০০৩ বিশ্বকাপে ৬৭৩ রান করেছিলেন মাস্টার ব্লাস্টার৷ মোট রানের বিচারেও বিশ্বকাপে সবার শীর্ষে রয়েছেন শচিন৷ ছ’টি বিশ্বকাপে তার মোট রান ২,২৭৮৷ তিনিই প্রথম ক্রিকেটার, যার দখলে রয়েছে ওয়ান ডে ক্রিকেটে প্রথম ডাবল সেঞ্চুরি৷

মাত্র ১৬ বছর বয়সে ১৯৮৯ সালে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অভিষেক হয়েছিল শচিনের৷ তবে ধারাভাষ্য হিসেবে লিটল মাস্টারের অভিষেক হল ৪৬ বছর বয়সে৷ ২৪ বছরের আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কেরিয়ারে টেস্টে ১৫,৯২১ এবং ওয়ান ডে-তে ১৮,৪২৬ রান রয়েছে ক্রিকেটঈশ্বরের ঝুলিতে৷ বিশ্বের প্রথম তথা একমাত্র ক্রিকেটার হিসেবে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ১০০টি সেঞ্চুরি রয়েছে শচিনের৷ অবশেষে ২০১৩ আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে গুডবাই জানান সচিন৷

এদিন কেনিংটন ওভালে দক্ষিণ আফ্রিকাকে ১০৪ রানে হারিয়ে বিশ্বকাপ অভিযান শুরু করে ইংল্যান্ড৷ এই ম্যাচে সৌরভ ও শেহওয়াগের সঙ্গে ধারাভাষ্য ভূমিকায় ছিলেন শচিন৷ সেই ছবি নিজের টুইটার অ্যাকাউন্টে আপলোড করেন বীরু৷ ৫ জুন ভারতের প্রথম ম্যাচেও সম্ভবত ধারাভাষ্য হিসেবে দেখা যাবে এই তিন মূর্তিকে৷ সাউদাম্পটনের রোজ বোলে দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধেই বিশ্বকাপ অভিযান শুরু করবে বিরাট অ্যান্ড কোং৷

/এস কে

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত