Most important heading here

Less important heading here

Some additional information here

Emphasized text
  • মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০১৯, ১১ আষাঢ় ১৪২৬
  • ||

চিচিপাসকে হারিয়ে ফাইনালে দুরন্ত রাফা

প্রকাশ:  ১৯ মে ২০১৯, ১৩:০৬
স্পোর্টস ডেস্ক
প্রিন্ট icon

ফরাসি ওপেনের আগে নিজের আত্মবিশ্বাস আর একটু বাড়িয়ে নিলেন রাফায়েল নাদাল। শনিবার(১৮ মে) রোমে সেমিফাইনালে রীতিমতো দাপট নিয়ে গ্রিসের স্টেফানোস চিচিপাসকে হারালেন ৬-৩, ৬-৪ সেটে। স্প্যানিশ মহাতারকা এখানে আট বারের চ্যাম্পিয়ন। আর চিচিপাসকে হারিয়ে এই মৌসুমে প্রথম বার কোনও ক্লে-কোর্ট টুর্নামেন্টের ফাইনালে উঠলেন।

গত সপ্তাহেই মাদ্রিদ ওপেনের ক্লে কোর্টে সবচেয়ে কমবয়সি খেলোয়াড় হিসেবে নাদালকে হারিয়ে ছিলেন গ্রিসের চিচিপাস। কিন্তু রোমে তাকে বিশেষ কিছু করার সুযোগই দিলেন না রাফা। বিশেষ করে স্পেনীয় তারকা প্রায় একশো ভাগ সার্ভিসই ঠিকঠাক মারলেন। হয়তো সেই কারণেই চিচিপাস খেলার মাঝেই বেশ হতাশ হয়ে পড়লেন। আরও গুরুত্বপূর্ণ তথ্য, এই সপ্তাহে নাদাল কোনও সেটই হারেননি। অথচ এই মৌসুমে তিনি ক্লে-কোর্টের তিনটি টুর্নামেন্টের সেমিফাইনালে হেরে যান।

নাদাল বলেছেন, বলা যায়, প্রতিটি ম্যাচে আমার খেলায় উন্নতি হচ্ছে। প্রসঙ্গত গত অক্টোবরে টরোন্টোয় চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পরে কোনও ট্রফি জেতেননি স্পেনীয় মহাতারকা। এ দিন রোমে গ্রিসের কুড়ি বছরের তারকা চিচিপাস প্রচুর সমর্থন পেলেন। কিন্তু নাদালের বিধ্বংসী মেজাজের সামনে বিশেষ কিছুই করতে পারেননি। যা নিয়ে নাদালের মন্তব্য, এটা ভেবে ভাল লাগছে যে শেষ পর্যন্ত সেমিফাইনালে আমি জিতলাম। তা ছাড়া ক্রমশ নিজের খেলায় উন্নতি হচ্ছে দেখেও আমি খুবই সন্তুষ্ট। আসলে চোট নিয়ে অনেক দিন থেকে ভুগেছি। একটাই ভাল খবর যে, এই মুহূর্তে সে সব নিয়ে বিশেষ কোনও সমস্যাও নেই।

নাদাল মনে করেন, ফরাসি ওপেনের আগে এটা তার কাছে খুবই গুরুত্বপূর্ণ একটা টুর্নামেন্ট। সতেরোটি গ্র্যান্ড স্ল্যামের মালিক অবশ্য চিচিপাসেরও প্রশংসা করেছেন। তার কথা, স্টেফানোস খুবই প্রতিভাবান। আমি নিশ্চিত যে ছেলেটা অনেক দূর যাবে। সঙ্গে যোগ করেছেন, প্রতি বছরই আমাকে প্রশ্ন করা হয়, এ বার নতুন কে বিশ্বের প্রথম দশে জায়গা করে নেবে। আমি কিন্তু চিচিপাসের নামটা বারবার বলি। এমন নয় যে আমি নিজে একজন বিরাট বিশেষজ্ঞ গোছের কিছু বলে ওর নামটাই করি। এই জন্য বলি যে বয়স যতই কম হোক ওর প্রথম দশে থাকার যোগ্যতা আছে। এই মৌসুমে তো ছেলেটা এতটা ভাল খেলবে নিজেও ভাবিনি।

মাদ্রিদে এই চিচিপাসের কাছেই হেরেছিলেন নাদাল। এ দিন কি প্রতিশোধ নেওয়ার কথাটা মাথায় ছিল? নাদাল অবশ্য মন্তব্য করেন, দেখুন খেলায় হার-জিত থাকে। বড় টুর্নামেন্টে যারা এখন খেলছে তারা কেউই দুর্বল নয়। চিচিপাস তো নয়ই। তবে প্রতিশোধের কথা মাথায় রাখি না। নিজের খেলায় উন্নতি করতে হবে এটাই ভাবি। প্রতিশোধ নিয়ে নয়, আজ সেরা খেলটা খেলতে পেরেই আমি বেশি খুশি। রোমে নবম বার চ্যাম্পিয়ন হওয়ার ব্যাপারে কতটা আশাবাদী জানতে চাওয়া হলে স্পেনীয় তারকার জবাব, অবশ্যই আমি আশাবাদী। তবে ট্রফির কথা নয়, আমি শুধু ভাবছি ফাইনালে আরও ভাল খেলার কথা। ঠিক এই ছন্দটা নিয়েই প্যারিসে খেলাটা এই মুহূর্তে আমার সবথেকে বড় লক্ষ্য।

/এস কে

apps
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত