Most important heading here

Less important heading here

Some additional information here

Emphasized text
  • মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই ২০১৯, ১ শ্রাবণ ১৪২৬
  • ||

মাথায় স্কার্ফ পরে মুসলিমদের সমর্থন জানালেন নিউজিল্যান্ডের নারীরা

প্রকাশ:  ২২ মার্চ ২০১৯, ১৯:৪২
আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রিন্ট icon

মসজিদে সন্ত্রাসী হামলায় নিহতদের স্মরণে শুক্রবার (২২ মার্চ) দুই মিনিটের জন্য নীরব ছিল পুরো নিউজিল্যান্ড। এদিন সহমর্মিতার বার্তা নিয়ে কয়েক হাজার লোক জড়ো হয়েছিল ক্রাইস্টচার্চের আল-নূর মসজিদের সামনে। এরমধ্যে অন্য ধর্মের বেশ কিছু নারী মাথায় স্কার্ফ পরে আসেন। থায়া অ্যাশম্যান নামে অকল্যান্ডের এক চিকিৎসক এই উদ্যোগ নেন বলে জানা যায়।

বার্তা সংস্থা রয়টার্সের খবরে জানানো হয়, জঙ্গি হামলার ভয়ে এক নারী হিজাব পরে বাইরে আসতে ভয় পাচ্ছেন শুনে থায়া অ্যাশম্যান ভাবেন, সব ধর্মের নারীরা আজ এভাবে ভীত নারীর সঙ্গে সংহতি প্রকাশ করতে পারেন। তিনি বলেন, আমি বলতে চাই, আমরা আপনাদের সঙ্গে আছি। আমরা চাই রাস্তায়ও যেন আপনি বাড়ির মতো বোধ (নিরাপত্তা বোধ) করেন। আমরা আপনাদের ভালোবাসি, সমর্থন ও শ্রদ্ধা করি।

এদিকে, অনেক নারী মাথা স্কার্ফ দিয়ে ঢেকে ছবি পোস্ট করছেন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। অনেক শিশুকেও দেখা গেছে স্কার্ফ পরতে।

বেল সিবলি নামে ক্রাইস্টচার্চের এক নারী আজ তাঁর হিজাব পরার কারণ তুলে ধরে বলেন, কেউ একজন বন্দুক তুলে ধরলে তিনি বন্দুকধারী ও নিশানায় থাকা ব্যক্তির মাঝখানে দাঁড়াবেন। যাতে বন্দুকধারী দুজনের মধ্যে কোনো তফাত খুঁজে না পায়।

মসজিদে হামলার পর মুসলিম সম্প্রদায়ের সঙ্গে মাথায় কালো স্কার্ফ পরে সাক্ষাৎ করে মানুষের মন জয় করে নিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী জেসিন্ডা। একজন নারী পুলিশকে ক্রাইস্টচার্চ সমাধিতে স্বয়ংক্রিয় অস্ত্র হাতে মাথায় স্কার্ফ পরে দায়িত্ব পালন করতে দেখা গেছে। তার ছবি ভাইরাল হয়েছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমগুলোতে।

স্কার্ফ পরার এই উদ্যোগ নিউজিল্যান্ডের ইসলামিক উইমেন কাউন্সিল এবং মুসলিম অ্যাসোসিয়েশন সমর্থন করলেও নিউজিল্যান্ডের ভেতরে-বাইরে অনেকেই এর বিরোধিতা করেছে।

প্রসঙ্গত, গত শুক্রবার ক্রাইস্টচার্চের আল নুর মসজিদে জুমার নামাজ আদায়রত মুসলিমদের ওপর আধা স্বয়ংক্রিয় বন্দুক নিয়ে হামলা চালায় অস্ট্রেলীয় যুবক ব্রেনটন টারান্ট (২৮)। এর কিছু পরে ব্রেনটন কাছাকাছি লিনউড মসজিদে হামলা চালান। দুটি হামলায় ৫০ জন নিহত হন। এর মধ্যে পাঁচজন বাংলাদেশি। আহত হন ৫০ জন। এরইমধ্যে গ্রেফতার করা হয়েছে ব্রেনটনকে। তার বিরুদ্ধে মামলা বিচারাধীন রয়েছে।


/পিবিডি/একে

ক্রাইস্টচার্চে হামলা
apps
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত