Most important heading here

Less important heading here

Some additional information here

Emphasized text
  • বুধবার, ১৬ অক্টোবর ২০১৯, ১ কার্তিক ১৪২৬
  • ||

মাননীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী, দেশের এই ক্রান্তিলগ্নে আপনি উধাও হন কিভাবে?

প্রকাশ:  ৩১ জুলাই ২০১৯, ১৬:২৯ | আপডেট : ৩১ জুলাই ২০১৯, ১৭:২৫
আনিসুর রহমান
প্রিন্ট icon
স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক

দেশ এক ক্রান্তিকাল অতিক্রম করছে। প্রতিদিন ভয়াবহ ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে মরছে মানুষ। মৃতের সংখ্যা ৫০ ছাড়িয়ে গেছে। আক্রান্তের সংখ্যা ১৫ হাজারের বেশি। প্রতিদিনই বাড়ছে এই সংখ্যা। এডিস মশা ও এর ডিম ধ্বংস করার কোনো ওষুধও দেশে নেই। হাইকোর্ট দুই সিটি কর্পোরেশনকে এডিস মশা মারার কার্যকর ওষুধ আনার জন্য ৭ দিনের সময় বেঁধে দিয়েছেন। অন্যদিকে হাসপাতালগুলোতে ডেঙ্গু আক্রান্ত রোগীতে ঠাইঁ নাই ঠাঁই নাই অবস্থা। এ পরিস্থিতিতে সরকার স্বাস্থ্য বিভাগের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের ঈদের ছুটি বাতিল করেছে। ডেঙ্গুতে আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসার জন্য হাসপাতালগুলো ডাক্তারদের কাছে উন্নত সরঞ্জামাদি নেই। আছে নানা সংকট, সীমাবদ্ধতা। এমন এক অনিশ্চয়তার মুখে দেশের ১৭ কোটি মানুষকে ফেলে রেখে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জনাব জাহিদ মালেক আপনি উধাও হয়ে গেলেন। খোঁজাখুঁজির পর জানা গেল আপনি ভ্রমণের জন্য সপরিবারে মালয়েশিয়ার বেড়াতে গেছেন। মাননীয় মন্ত্রী, মানুষ আপনার সমালোচনা করেছে, আপনি দুঃখ পেতে পারেন। কিন্তু আপনি একবার ভাবুন তো, আপনি যদি জনগণ হতেন আর এই পরিস্থিতিতে আপনাকে ফেলে দেশের স্বাস্থ্যমন্ত্রী বিদেশে বেড়াতে চলে যেতেন, তাহলে আপনি এটাকে কিভাবে নিতেন? নিশ্চয়ই আপনিও সমালোচনা করতেন! এখন আপনি যদি বিষয়টিকে মন্দ মনে করেন সেই কাজটি আপনি কেন করলেন!!

এর আগে আপনি বলেছেন সিটির মশা মারা আপনার দায়িত্ব না, এটা সিটি করপোরেশনের দায়িত্ব। আপনি বলেন তো, সারাদেশে ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে মানুষ সমানে মারা যাচ্ছে, এটা কি স্বাস্থ্যের সাথে জড়িত বিষয় নয়? এর দায় কি আপনি এড়াতে পারেন? আপনি একটি দায়িত্বশীল জায়গায় থেকে অনেক খেলো কথা বলেছেন, আপনার কথাবার্তায় মানুষ হাসে, কেউ ক্ষুব্ধ হয়। আপনি বলেন ডেঙ্গুর প্রজনন নাকি রোহিঙ্গাদের প্রজননেন মতো গতিশীল। আর এসব কথাবার্তার জন্য দলের সাধারণ সম্পাদক জনাব ওবায়দুল কাদের আপনাকে সতর্ক করেন। বেশি কথা না কাজে মনোযোগ দেওয়ার কথা বললেন। কারণ দেশের মানুষ ডেঙ্গুর মহামারিতে এক চরম ক্রান্তিকাল পার করছেন। আর এর মাঝেই আপনি কাউকে না জানিয়ে ব্যক্তিগত সফরে বেড়ানোর জন্য দেশের বাইরে চলে গেলেন। তাও আবার এক সপ্তাহ!

মাননীয় মন্ত্রী, এটা কেমন দেশপ্রেম আপনার? এমন একটা দায়িত্বশীল জায়গায় থেকে আপনি এ কাজটি কিভাবে করতে পারলেন।

মাননীয় মন্ত্রী, আপনি যে দেশের একজন মন্ত্রী সেটা ভুলে গেছেন? যদি ভুলে গিয়ে থাকেন তাহলে আমরা দেশের নাগরিক হিসেবে নুতন করে আপনাকে স্মরণ করিয়ে দিচ্ছি, আপনি একজন স্বাস্থ্যমন্ত্রী, আমাদের স্বাস্থ মন্ত্রী। মন্ত্রী হিসেবে আপনার দায়িত্ব অনেক বেশি।কিন্তু যা করেছেন তার জন্য দেশের মানুষ আপনাকে ধিক্কার জানাচ্ছে। এখন খবর পেলাম, আপনি সফর সংক্ষেপ করে দেশে ফিরছেন রাতেই। মাননীয় মন্ত্রী, দেশের এই চরম ক্রান্তিলগ্নে উধাও হয়ে গিয়ে আপনি কী প্রমাণ করলেন!

আপনি ২৮ জুলাই মালয়েশিয়া গেলেন, ফেরার পরিকল্পনা ৪ আগস্ট। কিন্তু কী কারণে সফর সংক্ষেপ করে ৩ দিনের মাথায়ই ফিরে আসছেন। সেটা আপনি ভালো জানেন। সবাই বলছে মানুষের সমালোচনার মুখে আপনি দেশে ফিরছেন। আর আমি বলবো মানুষের এই সমালোচনাকে যে আপনি মূল্য দিয়েছেন, সে জন্য আপনাকে ধন্যবাদ। মাননীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী আমরা দেশের নাগরিক হিসেবে আপনার কাছে আরও দায়িত্বশীল আচরণ আশা করি।

(লেখক: যুগ্ম বার্তা সম্পাদক, পূর্বপশ্চিম বিডি)

স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত