• শনিবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১০ আশ্বিন ১৪২৮
  • ||

বিমানবন্দরে পিসিআর টেস্ট আটকে থাকার নেপথ্যে

প্রকাশ:  ১৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৯:০৪
নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রবাসীদের ভোগান্তি লাঘবে এক সপ্তাহ আগে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশ দিয়েছিলেন দেশের সকল বিমানবন্দরে আরটি-পিসিআর টেস্টের (করোনা পরীক্ষা) ব্যবস্থা করতে। কিন্তু প্রধান দায়িত্বশীল প্রতিষ্ঠান প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় উপযুক্ত প্রতিষ্ঠান না পাওয়ায় কার্যক্রমটি আটকে আছে।

মন্ত্রণালয় সূত্র জানায়, পিসিআর টেস্ট স্থাপনার টেন্ডারে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান আবেদন করে। এরপর ডিএমএফআর মলিক্যুলার ল্যাব অ্যান্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টার নামে একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানকে প্রাথমিকভাবে অনুমোদন দেয়া হয়। তবে প্রতিষ্ঠানটির দেয়া তথ্য অসংগতিপূর্ণ মনে হওয়ায় ল্যাব স্থাপনের চূড়ান্ত কোনো সিদ্ধান্ত নিতে পারেনি প্রবাসীকল্যাণ মন্ত্রণালয়।

বর্তমানে বিষয়টিকে গুরুত্ব দিয়ে প্রতিষ্ঠান বাছাই করা হচ্ছে বলেও মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে।

প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইমরান আহমদ বলেন, বিষয়টিতে গুরুত্ব দিয়ে কাজ চলছে। উপযুক্ত এবং সক্ষম প্রতিষ্ঠানকেই এ কাজের দায়িত্ব দেয়া হবে।

জানা যায়, স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় ও বিমানবন্দর তাদের কাজ শেষ করেছে। এমনকি টেকনিক্যাল সাপোর্ট দেয়ার জন্য স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় প্রস্তুত রয়েছে বলেও জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক। পাশাপাশি হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ পিসিআর ল্যাব স্থাপনের জন্য জায়গা দিয়ে রেখেছে। বিষয়টি আটকে আছে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় উপযুক্ত প্রতিষ্ঠান না পাওয়ায়, যারা কার্যক্রমটি পরিচালনা করবে।

বিদেশগামীদের সুবিধার্থে দেশের তিনটি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে দ্রুত করোনাভাইরাস পরীক্ষার জন্য আরটি-পিসিআর ল্যাবের ব্যবস্থা করতে সংশ্লিষ্টদের নির্দেশ দেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। কিন্তু বিষয়টি নিশ্চিত করা যায়নি এখনো। ফলে ভোগান্তিতে পড়েছেন মধ্যপ্রাচ্যগামী প্রবাসীরা।

নির্ধারিত সময়ে কর্মস্থলে যোগ দিতে পারছেন না সংযুক্ত আরব আমিরাতসহ বিভিন্ন দেশে কর্মরত অর্ধকোটি শ্রমিক। মঙ্গলবার থেকে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সামনে অনশনে রয়েছেন তারা। একই সঙ্গে ইস্কাটনে অবস্থিত প্রবাসী ভবনের সামনেও তাদের বিক্ষোভ করতে দেখা গেছে।

মহামারি করোনাভাইরাসের কারণে যেসব দেশ বাংলাদেশের ওপর ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা দিয়েছিল, তাদের মধ্যে কয়েকটি সম্প্রতি নিষেধাজ্ঞা শিথিলের ঘোষণা দেয়। নিষেধাজ্ঞা শিথিল করা হলেও বেশ কিছু শর্ত মানতে বলা হয়েছে বাংলাদেশ থেকে যাওয়া যাত্রীদের। এর মধ্যে যাত্রার ছয় ঘণ্টা আগে বিমানবন্দরে পিসিআর টেস্ট উল্লেখযোগ্য।

বিমানবন্দরে করোনাভাইরাসের আরটি-পিসিআর টেস্টের সুবিধা না থাকায় সম্প্রতি বাংলাদেশ থেকে যাত্রী নেয়া হবে না বলে জানিয়েছে সংযুক্ত আরব আমিরাতের পতাকাবাহী বিমান পরিবহন সংস্থা এমিরেটস।

এই অবস্থায় প্রবাসীদের কথা মাথায় রেখে গত ৬ সেপ্টেম্বর মন্ত্রিসভা বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয়, ঢাকার হযরত শাহজালাল, সিলেটের ওসমানী ও চট্টগ্রামের শাহ আমানত আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে আরটি-পিসিআর ল্যাব বসানো হবে।

মন্ত্রিসভা বৈঠক শেষে মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম বলেছিলেন, ‘বিশ্বের বিভিন্ন দেশে একটি কন্ডিশন (শর্ত) দেয়া হচ্ছে যে, ফ্লাইংয়ের ৪, ৬ বা ৮ ঘণ্টা আগে পিসিআর টেস্ট করতে হবে। বেশ কয়েকটি দেশ থেকে এ রকম বলা হয়েছে। দুই-তিন দিনের মধ্যে আমাদের এখানেও টেস্টিং ফ্যাসিলিটিজ করা হবে।’

পূর্বপশ্চিমবিডি/এআই

বিমানবন্দর,পিসিআর টেস্ট
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close