• শুক্রবার, ২৯ মে ২০২০, ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭
  • ||

ক্যাসিনো দুদকের আইনে অপরাধ কি না, জানালেন চেয়ারম্যান

প্রকাশ:  ০৯ অক্টোবর ২০১৯, ১২:৫৬ | আপডেট : ০৯ অক্টোবর ২০১৯, ১৬:৫৪
নিজস্ব প্রতিবেদক

ক্যাসিনো ব্যবসা দুদক আইনের তফসিলভুক্ত অপরাধ নয় জানিয়ে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) চেয়ারম্যান ইকবাল মাহমুদ বলেছেন, এ ব্যবসার মাধ্যমে যে বা যারা জ্ঞাত আয়ের উৎস বহির্ভূত সম্পদ অর্জন করেছেন, তাদের বিষয়টি কমিশনের আইনের তফসিলভুক্ত অপরাধ। এ কারণে কমিশন অনুসন্ধান শুরু করেছে। তবে অনুসন্ধানের খাতিরে নামগুলো এখন বলা যাচ্ছে না।

বুধবার (৯ অক্টোবর) দুর্নীতি দমন কমিশন- দুদকের মিনি কনফারেন্স রুমে আয়োজিত এক অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

এসময় সাংবাদিকরা তার কাছে জানতে চান, সিঙ্গাপুরে ক্যাসিনো খেলার মাধ্যমে দেশের অর্থ পাচার হয়েছে কীনা। জবাবে তিনি বলেন, এখন অনেক কিছু সহজ হয়ে গিয়েছে। সিঙ্গাপুরে বা মালয়েশিয়ায় জুয়া খেলতে গেলে, অবশ্যই পাসপোর্ট নিয়ে যেতে হয়েছে। যার তথ্য দুই দেশের কাছেই আছে। সুতরাং এ ধরণের অভিযোগ আসলে, খুব সহজেই সনাক্ত করা যাবে এবং তথ্যগুলো যাচাই করব।

ব্যাংকগুলো থেকে পাচার হয়ে যাওয়া ১০ হাজার কোটি টাকারও বেশি ইতোমধ্যে আদায় করা হয়েছে জানিয়ে তিনি বলেন, আমরা এতেও খুশি না। কারণ, এ টাকাগুলো অবৈধভাবে পাচার হয়ে যাচ্ছিল। আমরা এখনো বিভিন্ন ব্যাংকের ওপর আসা অভিযোগ তদন্ত করে যাচ্ছি। ৫৬টি মামলা চলমান। আরও ৫-৬টি মামলা অপেক্ষামান। ব্যাংকগুলোর মামলা নিয়ে আমরা বিশেষ দৃষ্টি রাখছি। কারণ, টাকাগুলো আসলে কোথায় যাচ্ছে, সেটা আমরা সব সময় নিশ্চিত হতে পারছি না।’

টাকা পাচার ও ক্যাসিনো ব্যবসায় জড়িতদের তালিকায় কোনো মন্ত্রী বা সাংসদ আছেন কি-না এ প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, এগুলো কিছুই অনুসন্ধান না হওয়া পর্যন্ত বলা যাবে না।

এর আগে ঢাকা ল’ রিপোর্টস থেকে প্রকাশিত দুদকের আইনজীবী অ্যাডভোকেট খুরশীদ আলম খান সম্পাদিত ‘দ্যা এন্টি-করাপশন কমিশন অ্যাক্ট অ্যান্ড মানি লন্ডারিং প্রিভেনশন অ্যাক্ট উইথ সাম আদার রিলেটেড ল’স রিগার্ডিং ফিন্যান্সিয়াল ক্রাইম’ বইয়ের মোড়ক উন্মোচন করেন তিনি।


পূর্বপশ্চিমবিডি/ওআর

দুদক,ক্যাসিনা ব্যবসা,সম্রাট,খালেদ
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close