Most important heading here

Less important heading here

Some additional information here

Emphasized text
  • বুধবার, ২৬ জুন ২০১৯, ১২ আষাঢ় ১৪২৬
  • ||

প্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষার দ্বিতীয় ধাপেরও প্রশ্ন ফাঁস!

প্রকাশ:  ০১ জুন ২০১৯, ১৭:১১
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রিন্ট icon

সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষক নিয়োগে দ্বিতীয় ধাপের পরীক্ষা শুক্রবার (৩১ মে) অনুষ্ঠিত হয়েছে। এদিন দেশের ২৬ জেলায় একসঙ্গে এ পরীক্ষা নেয়া হয়। এর মধ্যে পটুয়াখালী থেকে প্রশ্ন ফাঁস ও পরীক্ষাসংক্রান্ত অপরাধে জড়িত থাকার দায়ে ৪৬ জনকে আটক করা হয়। তাদের মধ্যে ১২ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে।

একজনকে করা হয়েছে জরিমানা। বাকি ৩৩ জনের বিরুদ্ধে মামলা করা হচ্ছে। এছাড়া দেশের অন্যত্র থেকে সুষ্ঠুভাবে পরীক্ষা অনুষ্ঠানের খবর পাওয়া গেছে। সারা দেশে প্রায় ৬ লাখ প্রার্থী অংশ নিয়েছেন।

পটুয়াখালী প্রতিনিধি জানান, জেলায় প্রাথমিক সহকারী শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষার প্রশ্ন ফাঁস ও অসদুপায় অবলম্বনের অভিযোগে ৪৫ জনকে প্রশ্ন ও বিভিন্ন ডিভাইসসহ গ্রেফতার করা হয়েছে। শুক্রবার সকালে পটুয়াখালী শহরের বিভিন্ন পরীক্ষা কেন্দ্র ও জেলা প্রশাসকের কার্যালয় থেকে পরীক্ষা শুরু হওয়ার পূর্বে এবং পরে এদের গ্রেফতার করা হয়। এদের মধ্যে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের দু’জন উমেদারসহ ১২ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। বাকি ৩৩ জনের বিরুদ্ধে নিয়মিত মামলার প্রস্তুতি নিচ্ছে পুলিশ।

এ ঘটনায় শুক্রবার দুপুরে জেলা পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে বিষয়টি সাংবাদিকদের কাছে উপস্থাপন করেন পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মঈনুল হাসান। তিনি বলেন, গ্রেফতারকৃতদের কাছ থেকে প্রশ্নপত্র এবং মোবাইল ফোনের বিভিন্ন ডিভাইস ব্যবহার করে সরবরাহ করা উত্তরপত্র উদ্ধার করা হয়। পুলিশ সুপার জানান, পাবলিক পরীক্ষা নিয়ন্ত্রণ আইনে গ্রেফতারকৃতদের বিরুদ্ধে মামলা করা হবে।

প্রশ্ন ফাঁস চক্রের সঙ্গে কারা জড়িত পুলিশি তদন্তে বেরিয়ে আসবে বলেও জানান তিনি। এদিকে ৩৩ জনকে গ্রেফতার করা হলেও তদন্তের স্বার্থে তাদের নাম-পরিচয় প্রকাশ করা হয়নি। এর আগে জেলাপ্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট মো. নুরুল হাফিজ ১২ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে সাজা দেয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

পিপিবিডি/ এআর

সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়
apps
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত