Most important heading here

Less important heading here

Some additional information here

Emphasized text
  • মঙ্গলবার, ২১ মে ২০১৯, ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬
  • ||

সন্ধ্যার মধ্যে আশ্রয়কেন্দ্রে নেয়া হবে উপকূলের আরও ২১ লাখ মানুষ

প্রকাশ:  ০৩ মে ২০১৯, ১৬:১০ | আপডেট : ০৩ মে ২০১৯, ১৬:৩২
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রিন্ট icon
ফাইল ছবি

বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’র কারণে উপকূলীয় ঝুঁকিপূর্ণ জেলাগুলোতে শুক্রবার (৩ মে) সকাল থেকে দুপুর সাড়ে ১২টা পর্যন্ত ৪ লাখ ৪ হাজার ২৫০ জনকে আশ্রয় কেন্দ্রে নেওয়া হয়েছে এবং সন্ধ্যার মধ্যে আরও ২১ লাখ মানুষকে আশ্রয় কেন্দ্রে নেয়ার লক্ষ্যমাত্রা রয়েছে বলে জানিয়েছেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ সচিব মো. শাহ কামাল।

শুক্রবার সচিবালয়ে ঘূর্ণিঝড় ‘ফণি’র সর্বশেষ অবস্থা ও প্রস্তুতি নিয়ে সংবাদ সম্মেলনে ত্রাণ সচিব এ তথ্য জানান।

ত্রাণ সচিব বলেন, আমাদের আশ্রয় কেন্দ্রের সংখ্যা ৪ হাজার ৭১টি। নেভি, কোস্টগার্ড, পুলিশ, আনসার-ভিডিপি, স্বেচ্ছাসেবকসহ রাজনৈতিককর্মীরা উপকূলের মানুষদের আশ্রয় কেন্দ্রে নেওয়াসহ বিভিন্ন কার্যক্রমে অংশ নিচ্ছেন। মানুষের কোনো ক্ষতি হতে দেব না এজন্য ৪ হাজার ৭১টি আশ্রয় কেন্দ্র পুরোপুরি প্রস্তুত রাখা হয়েছে। এবার স্বতস্ফূর্তভাবে মানুষ আশ্রয়কেন্দ্রে আসছে। ৫৬ হাজার স্বেচ্ছাসেবকের সঙ্গে অন্যরা এ কাজে অংশ নিচ্ছে।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন, মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক খান, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা. এনামুর রহমান, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয় সংক্রান্ত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি এ বি তাজুল ইসলাম, প্রধানমন্ত্রী মুথ্য সচিব নজিবুর রহমান, তথ্য সচিব আব্দুল মালেক, স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের সচিব মো. আসাদুল ইসলাম।


পিপিবিডি/কেএম

ঘূর্ণিঝড় ফণী,উপকূলীয় অঞ্চল,ত্রাণ সচিব
apps
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত