Most important heading here

Less important heading here

Some additional information here

Emphasized text
  • শনিবার, ১৭ আগস্ট ২০১৯, ২ ভাদ্র ১৪২৬
  • ||

মহাকাশ জয়ের এক বছর

প্রকাশ:  ১২ মে ২০১৯, ১০:৩৬ | আপডেট : ১২ মে ২০১৯, ১১:০৭
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রিন্ট icon

বাঙালি জাতির মহাকাশ জয়ের এক বছর পূর্ণ হলো আজ। গত বছর ১২ মে দিবাগত রাত ২টা ১৪মিনিটে মহকাশের পথে যাত্রা শুরু করে স্বপ্নের ‘বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১’। এর সফল উৎক্ষেপণের মাধ্যমে ৫৭তম দেশ হিসেবে মহাকাশে জায়গা করে নেয় বাংলাদেশের নিজস্ব স্যাটেলাইট। সেই দিনটি ছিলো এক অনন্য ইতিহাস রচনার দিন।

২০১৮ সালের ১১ মে রাত ২টা ১৪ মিনিটে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১ যুক্তরাষ্ট্রের কেনেডি স্পেস সেন্টার থেকে ফ্যালকন-৯ রকেটের মাধ্যমে উৎক্ষেপণ করে মহাকাশ প্রযুক্তি সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান স্পেস এক্স৷ আগামী ১৫ বছরের জন্য মহাকাশে থাকবে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১৷

উৎক্ষেপণের ছয় মাস পর্যন্ত পরীক্ষামূলক কার্যক্রমের জন্য স্যাটেলাইটটির নির্মাণকারী প্রতিষ্ঠান ফ্রান্সের থ্যালেস এলেনিয়া স্পেস এর নিয়ন্ত্রণে ছিল। সে বছরের ৯ নভেম্বর দেশের প্রথম এই কৃত্রিম উপগ্রহের নিয়ন্ত্রণ বুঝে নেয় বাংলাদেশ। তারপর থেকে বাংলাদেশ কমিউনিকেশন স্যাটেলাইট কোম্পানি লিমিটেড (বিসিএসসিএল) এর নিয়ন্ত্রণে রয়েছে স্যাটেলাইটটি। মূলত দেশের দূর্গম অঞ্চলগুলোতে টেলিযোগাযোগ স্থাপন, নিরবিচ্ছিন্ন সম্প্রচার সেবা প্রদান, প্রাকৃতিক দুর্যোগের সময় ফাইবার অপটিক নেটওয়ার্ক বা ট্রান্সমিশন টাওয়ার ক্ষতিগ্রস্ত হলেও যোগাযোগ্য ব্যবস্থা টিকিয়ে রাখাসহ বেশ কয়েকটি উদ্দেশ্যে দুই হাজার ৭৬৫ কোটি টাকা ব্যয়ে তৈরি করা হয় বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১।

স্যাটেলাইটটির মালিকানা প্রতিষ্ঠান বিসিএসসিএল এর সূত্রমতে, স্যাটেলাইটটির বিভিন্ন কারিগরি দিক থেকে যে আয় হবে তা দিয়ে মেয়াদকালের অর্ধেক সময়েই উঠে আসবে এর নির্মাণ ও উৎক্ষেপণ ব্যয়। আর বাকি সময়গুলোতে যে অর্থ আয় হবে সেটি হবে মুনাফা।

ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ১৯৭৫ সালের জুন মাসের ১৪ তারিখে বেতবুনিয়ায় উপগ্রহ ভূ-কেন্দ্র উদ্বোধনের সময় মহাকাশে দেশের নিজস্ব স্যাটেলাইট উৎক্ষেপণের যে স্বপ্ন দেখেছিলেন, তারই সূযোগ্যা কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ‘ডিজিটাল বাংলাদেশ’র রূপকল্প বাস্তবায়নের অংশ হিসেবে সেটিকে বাস্তবায়ন করেন। বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটের মাধ্যমে উন্নত টেলিযোগাযোগ ও সম্প্রচার সেবা প্রদানের পাশাপাশি বিভিন্ন ধরনের অত্যাধুনিক ডিজিটাল সেবা দেওয়া সম্ভব হবে।

তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১-এর যাত্রার শুরুতেই বাংলাদেশের সবগুলো টিভি চ্যানেল এই স্যাটেলাইট থেকে সেবা নেওয়ার ব্যাপারে চুক্তি করেছে৷ রবিবার (১২ মে) থেকে তারা বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট দিয়ে সম্প্রচার শুরু করবে৷ আগামী ১৯ মে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর অনুষ্ঠান৷ ওই দিন প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর অনুষ্ঠানে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটের বহুমুখী ব্যবহারের উপর কয়েকটি প্রদর্শনী হবে৷ এর মধ্যে রয়েছে, অনলাইন ব্যাংকিং লেনদেনে সাইবার নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার, সব টিভি চ্যানেলকে স্যাটেলাইটের আওতায় আনা এবং ভাসানচরে ইন্টারনেট সেবা নিশ্চিত করা হবে এই স্যাটেলাইটের মাধ্যমেই৷ এছাড়া স্যাটেলাইট থেকে কেবল টিভি দেখার সেবা ‘ডাইরেক্ট টু হোম' বা ডিটিএইচ সেবাও নিশ্চিত করা হবে৷

বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট উৎক্ষেপণ,বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট
apps
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত