• রোববার, ১৭ নভেম্বর ২০১৯, ২ অগ্রহায়ণ ১৪২৬
  • ||

হকি ফেডারেশনের ভোটগ্রহণ চলছে

প্রকাশ:  ২৯ এপ্রিল ২০১৯, ১২:১১
স্পোর্টস ডেস্ক

১৪ বছর পর বহুল আলোচিত বাংলাদেশ হকি ফেডারেশনের (বাহফে) নির্বাচনের ভোটগ্রহণ চলছে। সোমবার (২৯ এপ্রিল) সকাল ১০টায় রাজধানীর ধানমন্ডিস্থ সুলতানা কামাল মহিলা ক্রীড়া কমপ্লেক্সে শুরু হয় ভোট গ্রহণ। বিকাল ৩টা পর্যন্ত চলবে ভোটগ্রহণের কার্যক্রম।

ফেডারেশনের নির্বাহী কমিটির ২৮ পদে ৮৪ জন কাউন্সিলর ভোট প্রদান করছেন। প্রার্থী রয়েছেন মোট ৫৫ জন।

এদিকে নির্বাচনের আগের দিন ভেন্যু পরিবর্তন হওয়ার সমালোচনার ঝড় হকি অঙ্গনে। তবুও জয়ের ব্যপারে আশাবাদী সাজেদ-সাদেক ও রশিদ-সাঈদ প্যানেল।

তবে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত সুলতানা কামাল মহিলা ক্রীড়া কমপ্লেক্স রশিদ-সাঈদ পরিষদের দখলে বলা চলে। কারণ, এখন পর্যন্ত ভোটকেন্দ্রে এক পক্ষের মানুষের উপস্থিতিই দেখা যাচ্ছে। তাদের প্রতিপক্ষ সাজেদ-সাদেক পরিষদের কোনো প্রার্থী কিংবা সমথর্কে ভোটকেন্দ্রে সকাল সোয়া ১১টা পযর্ন্ত দেখা যায়নি।

রশিদ-সাঈদ পরিষদের অন্যতম সহসভাপতি প্রার্থী আবদুর রশিদ শিকদার অভিযোগ করেছেন, প্রতিপক্ষ প্যানেল থেকে ভোটারদের মোবাইল নিয়ে ভোট দিতে যাওয়ার জন্য চাপ প্রয়েগ করা হচ্ছে। তারা চাচ্ছে, কেন্দ্রের বাইরে নিজেদের পক্ষের লোকজনকে জড়ো করে একসঙ্গে ভোটকেন্দ্রে আসতে।

যদিও নির্বাচন কমিশনের পক্ষ থেকে ভোটকেন্দ্রে মোবাইলসহ যে কোনো ইলেক্ট্রনি ডিভাইস, ব্যাগ এবং একসঙ্গে অনেক মানুষের প্রবেশ নিষিদ্ধ। মোটকথা একটা উত্তেজনাকর পরিস্থিতি বিরাজ করছে।

২০০৫ সালে সর্বশেষ হকির নির্বাচনে অংশ নিয়েছিলেন কাউন্সিলররা। পরে ২০১৭ সালে একবার নির্বাচনের কার্যক্রম শুরু হয়েছিল। তৎকালীন সাধারণ সম্পাদক প্রয়াত খাজা রহমতউল্লাহ এবং সহ-সভাপতি আবদুর রশিদ সিকদার সাধারণ সম্পাদক পদের জন্য প্রার্থী ছিলেন। কিন্তু বন্যার কারণ দেখিয়ে নির্বাচন স্থগিত করে জাতীয় ক্রীড়া পরিষদ। এর প্রায় দেড় বছর পর নির্বাচন নিয়ে ফের সরগরম হকি অঙ্গন।

তবে সব ছাপিয়ে আলোচনায় নির্বাচনের ভেন্যু পরিবর্তন। জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের জিমন্যাশিয়ামে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু রবিবার ( ২৮ এপ্রিল) হঠাৎ নির্বাচন কমিশনার শাহ আলম সরদার হকির ধানমন্ডিস্থ সুলতানা কামাল মহিলা ক্রীড়া কমপ্লেক্সকে নির্বাচনের ভেন্যু হিসেবে ঘোষণা দেন।

/অ-ভি

হকি ফেডারেশন,ভোটগ্রহণ
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত