• বুধবার, ০৩ জুন ২০২০, ২০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭
  • ||

রাস্তার কুকুরের পাশে এ কোন জয়া!

প্রকাশ:  ০১ এপ্রিল ২০২০, ২৩:৩৬ | আপডেট : ০২ এপ্রিল ২০২০, ০০:১৬
বিনোদন প্রতিবেদক

করোনা সংক্রমন প্রতিহত করতে দেশজুড়ে কার্যত লকডাউন বহাল আছে। করোনার ঝুঁকি এড়াতে সবাই ব্যস্ততা ভুলে ঘরে বসেই সময় পার করছেন। এই সময় নিরব রাজধানীর একটি রাস্তায় দেখা গেল তাকে। হলুদ কামিজ, সাদা সালোয়ার। মুখে মাস্ক বাঁধা থাকলেও জয়া আহসান চিনে নিতে কারো ভুল হওয়ার কথা নয়।

লকডাউনে স্তব্ধ শহরের নির্জন রাস্তায় কি করছেন জয়া আহসান? আসলে করোনা সতর্কতায় সামাজিক দূরত্ব আরোপের পর থেকেই একটা নির্দিষ্ট সময়ে কিছু সময়ের জন্য বাইরে বের হচ্ছেন ঢাকা ও কলকাতার জনপ্রিয় এই অভিনেত্রী। গত কয়েকদিন ধরেই ঢাকার রাস্তার ১৫ থেকে ২০টি কুকুরকে নিজের হাতে মুরগির মাংস আর ভাত খাওয়াচ্ছেন জয়া।

লকডাউনের এই সময়ে সারাদিন বাসায় থাকেন, অল্পসময়ের জন্য বাইরে বের হন কুকুরগুলোকে খাওয়াতে। এতেই তার শান্তি। কুকুরগুলোকে এভাবে তিনি নিরবে নিভৃতেই খাবার বিলিয়ে যাচ্ছিলেন, বিষয়টি গণমাধ্যম বা সোশাল মিডিয়ায় আনতে চাননি। কিন্তু তা আর হলো কই?

জয়ার ভাই অদিত মাসুদ তাকে না জানিয়েই ছবিগুলো সোশাল মিডিয়ায় পোস্ট করে দেন। ক্যাপশনে লি খেন, আমার বোন জয়ার জন্য আমার গর্ব হচ্ছে।

পশুপাখিদের প্রতি জয়ার দুর্বলতা অনেক দিনের। পশুপাখিদের নিয়ে কাজ করে এমন একাধিক এনজিও’র সঙ্গে যুক্ত তিনি। কিন্তু তাঁর এই ভাবনা বা কাজকে তিনি কখনও প্রচারের আলোয় নিয়ে আসেননি।

দেশে ছোটপর্দায় জনপ্রিয়তা পেলেও কলকাতায় জয়া নন্দিত হয়েছেন বড়পর্দায় অভিনয় করে। শিডিউল অনুযায়ী এখন তার ভারতেই থাকার কথা ছিল। এই সময় ‘অর্ধাঙ্গিনী’ ছবির কিছু কাজ করার কথা ছিল। কিন্তু করোনা হুমকিতে সব ওলটপালট।

সারাবিশ্বের মতোই করোনা সতর্কতায় গুটিয়ে গেছে ঢাকা। ঘর থেকে বের হওয়ার ওপর বিধিনিষেধ আরোপ হয়েছে।অনেকের জীবন জীবিকায় নেমে এসেছে অনিশ্চয়তা। তাদের জন্য কিছু করতে মন টানে জয়া আহসানের। কিন্তু একার সামর্থ্য কতটুকু!

জয়া ঠিক করেছেন, একসময় যারা ছোটপর্দা বা বড় পর্দায় কাজ করেছেন কিন্তু পরিস্থিতির কারণে বর্তমানে বেকার। জীবিকায় অনিশ্চয়তা নেমে আসা সেইসব মানুষের জন্য একটা সহায়তা তহবিল গঠন করার কাজে দিয়েছিন নন্দিত এই অভিনেত্রী। কাজটা তিনি নিভৃতেই বেশ খানিকটা এগিয়েছেন। কয়েকজনকে এরই মধ্যে সহায়তাও করেছন। সবার সম্মানরক্ষা আর নিজের রুচিবোধের কারণে নামগুলো কোনোভাবে বলতে রাজি নন জয়া।

পূর্বপশ্চিম-এনই

জয়া আহসান,জয়া
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close