• বুধবার, ১২ মে ২০২১, ২৯ বৈশাখ ১৪২৮
  • ||

ঢাবি ভিসিকে ডা. জাফরুল্লাহর অনুরোধ

প্রকাশ:  ০৩ মে ২০২১, ২১:৫১
নিজস্ব প্রতিবেদক
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়

ছাত্র অধিকার পরিষদ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সভাপতি-সাধারণ সম্পাদকসহ গ্রেপ্তার ৫৩ ছাত্রের মুক্তির আহ্বান জানাতে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য (ভিসি) ড. আখতারুজ্জামানের প্রতি অনুরোধ জানিয়েছেন গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের ট্রাস্টি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী।

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বাংলাদেশে আগমনের প্রতিবাদে পালিত কর্মসূচিকে কেন্দ্র করে কয়েকটি মামলায় এসব শিক্ষার্থীকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতার শিক্ষার্থীদের মুক্তির দাবিতে সোমবার (৩ মে) কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে সমাবেশ করেন তাদের অভিভাবকরা। সেখানে সংহতি প্রকাশ করেন ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী।

সমাবেশ শেষে ডা. জাফরুল্লাহর নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধি দল ঢাবি ভিসি অধ্যাপক ড. আখতারুজ্জামানের সঙ্গে সাক্ষাৎ করে। সাক্ষাতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যকে ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী ছাত্রনেতাদের মুক্তির আহ্বান জানাতে অনুরোধ জানান।

সাক্ষাতের বিষয়টি নিশ্চিত করে উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান বলেন, আজ ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরীর সঙ্গে সাক্ষাৎ হয়েছে। তার সঙ্গে বেশ কয়েকজন নেতা ছিলেন। এসময় তারা আটক শিক্ষার্থীদের মুক্তির আহ্বান জানাতে অনুরোধ করেন।

তিনি আরো বলেন, কোনো শিক্ষার্থী যেন হয়রানি শিকার না হন, অযথা কোনোভাবে ঝামেলায় না পড়েন। এ ব্যাপারে সংশ্লিষ্টদের দৃষ্টি আকর্ষণ করি। আইন তার নিজস্ব গতিতে চলবে। কিন্তু কোনোক্রমেই আমাদের কোনো শিক্ষার্থী যেন কোনোভাবে হেনস্থার শিকার না হন, তার জন্য সংশ্লিষ্টদের অনুরোধ করছি।

উপাচার্যের সঙ্গে সাক্ষাতের সময় নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না, গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়ক জোনায়েদ সাকি, ডাকসুর সাবেক ভিপি নুরুল হক নুরসহ অন্যান্য নেতা উপস্থিত ছিলেন।

এর আগে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে অভিভাবক ও নাগরিক সমাবেশে ডা. জাফরুল্লাহ বলেন, ‘তারা মানুষের অধিকারের কথা বলেছে, যৌক্তিক প্রতিবাদ করেছে। মানুষের অধিকারে কথা বলা যদি অপরাধ হয় আমিও সেই একই অপরাধে অপরাধী। আমাকেও গ্রেপ্তার করুন। জেলে রাখুন। ছাত্ররা যখন মুক্তি পাবে। আমাকেও তখন মুক্তি দিবেন।’

আসন্ন ঈদের আগেই গ্রেপ্তার সব শিক্ষার্থীর মুক্তি দাবি করে তিনি প্রশ্ন রাখেন, ‘ওই ছাত্ররা কি কাউকে খুন করেছে, বলৎকার করেছে, চাঁদাবাজি বা ছিনতাই করেছে?’

ডা. জাফরুল্লাহ বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, আপনার কাছে বিচার চাইতে এসেছি। ঘুম ভাঙ্গার আবেদন করছি। আপনাকে অপমান করার অধিকার আপনার কন্যার নেই। আপনাকে অপমান করার অধিকার নরেন্দ্র মোদির নেই। আপনার সময় যে সমস্ত বিচার হয়েছিল, মানুষ ন্যায্য বিচার পেয়েছিল, আপনার আত্মজীবনীতে এই কথা আছে। কিন্তু আজকে শিক্ষার্থীরা ন্যায় বিচার পাচ্ছে না।’

পূর্বপশ্চিমবিডি/এসএস

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close