• মঙ্গলবার, ০৭ জুলাই ২০২০, ২৩ আষাঢ় ১৪২৭
  • ||

বাংলাদেশ থেকে করোনার ওষুধ নেবে পাকিস্তান

প্রকাশ:  ৩০ মে ২০২০, ২১:৪১ | আপডেট : ৩০ মে ২০২০, ২১:৪৪
পূর্বপশ্চিম ডেস্ক

করোনার ওষুধ হিসেবে যুক্তরাষ্ট্রের অনুমোদিত রেমডিসিভির বাংলাদেশ থেকে আমদানির পরিকল্পনা করছে পাকিস্তান। পাকিস্তানে করোনায় ৫৬ জন মৃত্যুর পর সার্লে কোম্পানি নামের একটি প্রতিষ্ঠান এ ঘোষণা দিয়েছেন।

বার্তাসংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, করোনার বিরুদ্ধে কার্যকারিতা দেখানো ওষুধ রেমডেসিভিরের মূল কোম্পানি গিলিয়াড সাইয়েন্সের কাছ থেকে লাইসেন্স পেয়ে পাকিস্তানে ওই ওষুধ উৎপাদন করার কথা একটি কোম্পানির। তবে এরপরও যথাসময়ে ওষুধটি উৎপাদন করতে পারছে না ওই কোম্পানি। ফলে সার্লে কোম্পানি নামে আরেক প্রতিষ্ঠান মাঝের সময়টুকুতে বাংলাদেশের বেক্সিমকোর উৎপাদিত বিশ্বের প্রথম জেনেরিক রেমডেসিভির ওষুধ আমদানি করে সংকট মেটাতে চায়।

খবরে বলা হয়, সার্লে কোম্পানি লিমিটেড নামে ওই কোম্পানি সম্প্রতি তাদের শেয়ারবাজারে এক বিবৃতিতে এই ঘোষণা দিয়েছে। প্রতিষ্ঠানটি যেইদিন এই ঘোষণা দিয়েছে, সেইদিনই পাকিস্তানে ৫৬ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন। প্রতিষ্ঠানটি বলছে, বিশ্বের প্রথম জেনেরিক রেমডেসিভির উৎপাদনকারী বেক্সিমকো ফার্মার সঙ্গে এক্সক্লুসিভ লাইসেন্সিং ও বাজারজাতকরণের চুক্তি করেছে তারা।

পাকিস্তান স্টক এক্সচেঞ্জে দেওয়া এক ফাইলিং-এ প্রতিষ্ঠানটি জানায়, ‘দেশের জরুরী প্রয়োজন মেটাতে সার্লে ফার্মা প্রস্তুতকৃত (ব্যবহারোপযোগী) রেমডেসিভির আমদানি করার পরিকল্পনা করছে।’

এখন পর্যন্ত করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে সবচেয়ে প্রতিশ্রুতিশীল ওষুধ হিসেবে বিশ্বব্যাপী নজর কেড়েছে রেমডেসিভির। রেমডিসিভির উৎপাদনের একমাত্র অনুমোদিত প্রতিষ্ঠান যুক্তরাষ্ট্রের জিলিড সায়েন্স। তবে বৈশ্বিক বাণিজ্য বিধি অনুযায়ী, যুক্তরাষ্ট্রের তালিকায় অনুন্নত হিসেবে চিহ্নিত দেশগুলো ওষুধ উৎপাদনে প্যাটেন্ট ছাড় পাবে। এই তালিকার ৪৭ টি দেশের অন্যতম বাংলাদেশ তাই রেমডিসিভির উৎপাদনের সুযোগ পেয়েছে। সম্প্রতি বাংলাদেশের বেক্সিমকো ফার্মাসিউটিক্যালস বেমসিভির নাম দিয়ে ওষুধটি বাজারে এনেছে।

পূর্বপশ্চিমবিডি/এসএস

করোনাভাইরাস
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close