• শনিবার, ৩০ মে ২০২০, ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭
  • ||

তাবলিগ সদস্যদের করোনায় আক্রান্তের জন্য মোদি সরকার দায়ি: মমতা

প্রকাশ:  ০৯ এপ্রিল ২০২০, ১৩:২৩ | আপডেট : ০৯ এপ্রিল ২০২০, ১৩:৩৯
পূর্বপশ্চিম ডেস্ক

ভারতের রাজধানী দিল্লিতে তাবলিগ জামাতের সদর দপ্তরে হাজার হাজার লোকের সমাবেশ থেকে অসংখ্য মানুষের ভেতর করোনাভাইরাস সংক্রমণের আশঙ্কা দেখা দেওয়ার পর গোটা বিষয়টি নিয়ে তীব্র সাম্প্রদায়িক বিতর্ক শুরু হয়েছে।ইতিমধ্যেই ওই সমাবেশে যোগ দেওয়া প্রায় শ দেড়েক ব্যক্তি করোনা পজিটিভ হিসেবে শনাক্ত হয়েছেন।

তাবলিগ জামাতের লোকজনের করোনা সংক্রমণের জন্য মোদি সরকারকেই দায়ি করেছেন মমতা ব্যানার্জি । মমতার দাবি, সময়মতো পদক্ষেপ করা হলে এই সমস্যা হত না। বুধবার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, ‘‘অনুমতি দিয়েছিল বলেই নিজামুদ্দিনে অনেক মানুষের জমায়েত হয়েছিল। রাজনৈতিক বিষয়ের মধ্যে যেতে চাই না। উল্টোপাল্টা, সাম্প্রদায়িক মন্তব্য করছেন কেউ কেউ। মহামারি কোনও ধর্ম-বর্ণ দেখে না।’’

রাজ্য সরকারের দাবি, জানুয়ারি মাসের শেষে প্রথম করোনা-আক্রান্তের তথ্য মেলে কেরল থেকে। ভারত সরকার ২৪ মার্চ থেকে লকডাউন ঘোষণা করেছে। নিজামুদ্দিনের অনুষ্ঠান হয়েছে ১৩ মার্চ। ফলে সময়মতো তথ্য পেলে রাজ্য সরকারের পক্ষে পরিস্থিতি সামাল দিতে সুবিধা হত। মুখ্যমন্ত্রী জানান, ১০-১২ দিন আগে কেন্দ্রের থেকে তথ্য পেয়েই ছ’ঘণ্টার মধ্যে মালয়েশিয়া, মায়ানমার, ইন্দোনেশিয়া, তাইল্যান্ড থেকে আসা যে ১০৮ জন বিদেশি সেই অনুষ্ঠানে ছিলেন, তাঁদের কোয়রান্টিন সেন্টারে নিয়ে যাওয়া হয়। এ রাজ্য থেকে যে ৬৯ জন নিজামুদ্দিন গিয়েছিলেন, তাঁদেরও একই সঙ্গে রাখা হয়েছে।

মুখ্যমন্ত্রী জানান, ভারত সরকারের অধীনে পাসপোর্ট, ভিসা, ইমিগ্রেশন করে ওই বিদেশিরা এসেছিলেন। তাঁর কথায়, তার পরেও আমরা আমাদের দায়িত্ব পালন করেছি। নিজেরাই করিয়েছে, নিজেরাই বলে বেড়াচ্ছে, এই হল না, সেই হল না।’


পূর্বপশ্চিমবিডি/ওআর

ভারত,তাবলিগ,দিল্লি
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close