• মঙ্গলবার, ০৪ আগস্ট ২০২০, ২০ শ্রাবণ ১৪২৭
  • ||

‘সোলাইমানি বিশ্বের ১ নম্বর সন্ত্রাসী’

প্রকাশ:  ১৪ জানুয়ারি ২০২০, ১৬:৫৯ | আপডেট : ১৪ জানুয়ারি ২০২০, ১৭:০১
পূর্বপশ্চিম ডেস্ক

বাগদাদ আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরে মার্কিন ড্রোন হামলায় হত্যা করা হয় ইরানের কুদস ফোর্সের প্রধান কাসেম সোলাইমানিকে। মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের নির্দেশেই হত্যা করা হয় তাকে। এবার কাসেম সোলেইমানিকে বিশ্বের ১ নম্বর সন্ত্রাসী বলে অভিহিত করলেন ট্রাম্প।

সোমবার এক সংক্ষিপ্ত প্রেস ব্রিফিংয়ে ডোনাল্ড ট্রাম্প বলেন, আমরা সোলাইমানিকে হত্যা করেছি, সব দিক থেকেই তিনি বিশ্বের ১ নম্বর সন্ত্রাসী। বাজে লোকটি অনেক মার্কিনি, অনেক মানুষকে হত্যা করেছে। আমরা তাকে হত্যা করেছি। যখন ডেমোক্রেটরা তার সমর্থন নিতে যায়, এটা আমাদের দেশের জন্য লজ্জাজনক।

সোলেইমানিকে হত্যায় কিছুই যায় আসে না বলেও মন্তব্য করেন ট্রাম্প। তিনি বলেন, ‘তার (সোলাইমানির) ভয়ংকর অতীতের জন্য এতে (হত্যাকাণ্ডে) কিছুই যায় আসে না।’ গত ৩ জানুয়ারি বাগদাদের আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের কাছে মার্কিন ড্রোন হামলায় জেনারেল কাসেম সোলেইমানি নিহত হন।

এই হত্যাকাণ্ডের প্রতিশোধে ইরাকে অবস্থিত দুটি সামরিক ঘাঁটিতে ইরানের ক্ষেপণাস্ত্র হামলা ঘিরে মধ্যপ্রাচ্যে প্রচণ্ড উত্তেজনা দেখা দেয়। এ হামলায় ৮০ মার্কিন সেনা নিহত হয়েছে বলে দাবি তেহরানের। তবে যুক্তরাষ্ট্র এ দাবি প্রত্যাখ্যান করে বলেছে, এ হামলায় তাদের কোনো সৈন্য নিহত হননি।

এদিকে ইরানের ভুলবশত ক্ষেপনাস্ত্র হামলায় ইউক্রেনের এক বিমান বিধ্বস্ত হয়। এতে ৫৬ জন কানাডার নাগরিক, ৮২ জন ইরানি, ১১ জন ইউক্রেনিয়ন, ১০ জন সুইডিশ এবং চারজন আফগান নাগরিক মারা যায়। এনিয়ে দেশটিতে ইরানি সরকার বিরোধী আন্দোলনে নেমেছে।


পূর্বপশ্চিমবিডি/ওআর

সোলাইমানি,ট্রাম্প,আমেরিকা,ইরান
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close