• মঙ্গলবার, ২৮ জানুয়ারি ২০২০, ১৪ মাঘ ১৪২৬
  • ||

‘ভারতের সবচেয়ে বড় ধর্ষক ছিলেন নেহেরু'

প্রকাশ:  ০৯ ডিসেম্বর ২০১৯, ১০:০৬ | আপডেট : ০৯ ডিসেম্বর ২০১৯, ১০:১০
পূর্বপশ্চিম ডেস্ক

হায়দরাবাদকাণ্ডের পর থেকে গোটা দেশ ফের নারী নির্যাতনের ঘটনা নিয়ে সোচ্চার হয়ে উঠেছে। হায়দরাবাদকাণ্ডে অভিযুক্তদের এনকাউন্টার করা হলেও দেশজুড়ে নারী নির্যাতন থামানো যায়নি। এই পরিস্থিতিতে দেশের প্রথম প্রধানমন্ত্রী জওহরলাল নেহেরুকে দেশের ক্রমবর্ধমান ধর্ষণ এবং নারী নির্যাতনের জন্য দায়ী করলেন উগ্র হিন্দুত্ববাদী নেত্রী সাধ্বী প্রাচী।

রোববার সরাসরিই উগ্র হিন্দুত্ববাদী এই নেত্রী বলেন, 'সন্ত্রাস, দুর্নীতি এবং ধর্ষণ- এই সবকিছুই নেহেরুরই দেওয়া উপহার। রাহুল গান্ধী কী বলবেন, আমাদের দেশটা হল রাম আর কৃষ্ণের দেশ। আর এই দেশের সবচেয়ে বড় ধর্ষক ছিলেন নেহেরু। ও আমাদের রাম এবং কৃষ্ণের সংস্কৃতিকে ধ্বংস করে দিয়েছে।'

উল্লেখ্য, হায়দরাবাদকাণ্ডের পর থেকে কেন্দ্রীয় সরকারকেও চেপে ধরেছে বিরোধীরা। রাহুল গান্ধী এপ্রসঙ্গে বলেন, 'বিশ্বের কাছে এখন ভারতের পরিচয় ধর্ষণের রাজধানী হিসেবে। বাইরের সকলের একটাই প্রশ্ন, কেন ভারত নিজের মেয়ে ও বোনেদের নিরাপত্তা দিতে পারে না? উত্তরপ্রদেশের একজন বিজেপি বিধায়ক ধর্ষণের অভিযুক্ত। কিন্তু, এই বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী এখনও একটা শব্দও বললেন না। আসলে আমরা এমন একজন প্রধানমন্ত্রী পেয়েছি, যিনি নিজেই ঘৃণা ও হিংসার আদর্শে বিশ্বাসী।

ভারত,ধর্ষক,নেহেরু
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত